March 8, 2021, 4:22 pm

শিরোনাম
জয় হোক মানবতার, জয় হোক সাপোর্ট এর মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর কাছে ইরাক প্রবাসী খোলা চিঠি। টাকার মেশিন এমপি নূর মোহাম্মদের বিকাশ নাম্বার, অজ্ঞাত উৎস থেকে প্রতিদিন ঢুকছে টাকা! বাংলাদেশ থেকে ১২ হাজার কর্মী নেবে সিঙ্গাপুর ও রোমানিয়া কৌশলে রেজিস্ট্রেশন করে টিকা নিচ্ছেন ৪০ বছরের কম বয়সীরাও! বিশ্ববিদ্যালয় খুলবে ২৪ মে,আবাসিক হল ১৭ মে: শিক্ষামন্ত্রী পিরোজপুরে স্কুল শিক্ষিকার বাসা থেকে গৃহপরিচারিকার ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার। “বকুলতলা ফাউন্ডেশনের পক্ষ থেকে অমর একুশের ভাষা শহিদদের স্মৃতির প্রতি শ্রদ্ধার্ঘ ও পুষ্পস্তবক অর্পণ” ভাষা শহীদদের জন্য বায়তুল মোকাররমে দোয়া ও মোনাজাত বাগেরহাটে গাছে আমের মুকুলে ভরপুর স্বপ্ন বুনছেন চাষিরা।

করোনায় স্থবির সুইডেন, চাকরি হারানোর ভয়ে প্রবাসীরা

ইউরোপে লকডাউন না করা দেশ সুইডেনে প্রতিদিন বাড়ছে আক্রান্তের সংখ্যা। পুরোপুরি স্থবিরতা নেমে না আসলেও অনেকটা ধীরগতিতে চলছে জনজীবন। কাজসহ বসবাসের অনুমতি হারাতে পারেন দেশটিতে বসবাসরত প্রবাসী বাংলাদেশীরা।

করোনা ভাইরাসে সুইডেন লকডাউন না করলেও, অতি প্রয়োজন ছাড়া মানুষজন ঘর থেকে বের হচ্ছে না। স্থানীয় পর্যায়ে ব্যবসা বাণিজ্যেও নেমে এসেছে স্থবিরতা। প্রতিদিন চাকরি হারাচ্ছেন বহু মানুষ। এ চাকরি হারানোর তালিকায় আছেন দেশটিতে অস্থায়ী কাজের অনুমতি নিয়ে থাকা অনেক বাংলাদেশি।

তারা বলেন, আমরা এখানে কাজের পাশাপাশি পড়াশোনা করতাম। কিন্তু আমরা যেখানে কাজ করছি সেখান থেকে আমাদের ইস্তফা দেয়া হয়েছে। আগামী তিন মাসের মধ্যে যদি জব নিতে না পারি তাহলে ভিসার মেয়াদ বাড়িয়ে নিতে অনেক জটিলতায় পরতে হবে।

দীর্ঘদিন সুইডেনে থাকা অনেকে স্থায়ীভাবে বসবাসের আবেদন করেছেন। কাজ চলে যাওয়ায় তারাও অনিশ্চয়তার মধ্যে দিন কাটাচ্ছেন।  তারা বলেন, আগে আমাদের ১০০ শতাংশ কাজ ছিল। এখন ৪০ শতাংশ কাজ হয়ে গেছে। আগে যেখানে কাজ দেখিয়ে সহজেই অভিবাসনের কাগজপত্র করা যেতো এখন করোনার কারণে অনেকের কাজ চলে গেছে। এখন আমরা কি করবো বুঝতে পারছি না। খুবই চিন্তায় আছি।

সুইডেনে এখন পর্যন্ত করোনায় মৃতের সংখ্যা দেড় হাজার ছাড়িয়েছে। অর্থনীতিকে সচল রাখতে লকডাউন না করে সুইডেন এক ভিন্ন উদাহরণ সৃষ্টি করল। বৈশ্বিক এই মহামারির সময় সুইডেন সরকার যেন তার অর্থনীতিকে সচল রাখার পাশাপাশি দেশটিতে কর্মরত অস্থায়ী কাজের অনুমতি নিয়ে বসবাস করা সবার বিষয় বিবেচনায় রাখে – এমনই প্রত্যাশা সংশ্লিষ্টদের।

শেয়ার করুন

© All rights reserved, প্রবাসী ক্লাব ফাউন্ডেশন- The Expat Club Foundation. (এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি)।  
Design & Developed By NCB IT
Shares