March 4, 2021, 12:22 am

শিরোনাম
মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর কাছে ইরাক প্রবাসী খোলা চিঠি। টাকার মেশিন এমপি নূর মোহাম্মদের বিকাশ নাম্বার, অজ্ঞাত উৎস থেকে প্রতিদিন ঢুকছে টাকা! বাংলাদেশ থেকে ১২ হাজার কর্মী নেবে সিঙ্গাপুর ও রোমানিয়া কৌশলে রেজিস্ট্রেশন করে টিকা নিচ্ছেন ৪০ বছরের কম বয়সীরাও! বিশ্ববিদ্যালয় খুলবে ২৪ মে,আবাসিক হল ১৭ মে: শিক্ষামন্ত্রী পিরোজপুরে স্কুল শিক্ষিকার বাসা থেকে গৃহপরিচারিকার ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার। “বকুলতলা ফাউন্ডেশনের পক্ষ থেকে অমর একুশের ভাষা শহিদদের স্মৃতির প্রতি শ্রদ্ধার্ঘ ও পুষ্পস্তবক অর্পণ” ভাষা শহীদদের জন্য বায়তুল মোকাররমে দোয়া ও মোনাজাত বাগেরহাটে গাছে আমের মুকুলে ভরপুর স্বপ্ন বুনছেন চাষিরা। সেভ দ্যা ফিউচার ফাউন্ডেশন কেন্দ্রীয় প্রতিনিধি সম্মেলন ২০২১ অনুষ্ঠিত হয়েছে।

সিনহা নিহতের পর গ্রেপ্তার সিফাতের মুক্তির দাবিতে বরগুনায় আয়োজিত মানববন্ধনে লাঠিচার্জ করেছে পুলিশ।

পুলিশের গুলিতে নিহত সাবেক মেজর সিনহার সঙ্গে থাকা সিফাতের মুক্তির দাবিতে বরগুনায় মানববন্ধনে লাঠিচার্জ করেছে পুলিশ। ছত্রভঙ্গ করে দেয়া হয় কর্মসূচি। এসময় পুলিশের লাঠিচার্জে অন্তত ১০ জন আহত হন।

পুলিশ বলছে, অনুমতি ছাড়াই সরকার বিরোধী কর্মসূচির আয়োজন করায় ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে।

শনিবার (৮ আগস্ট) দুপুরে বরগুনার বামনা উপজেলার পশ্চিম সফিপুর এলাকায় সাবেক মেজর সিনহার সঙ্গে থাকা সিফাতের মুক্তির দাবিতে মানববন্ধন করেন সিফাতের সহপাঠী ও এলাকাবাসী।

আন্দোলনরত একজন বলেন, ‘সিফাত একটা ভালো ছেলে। তার জন্য মানববন্ধনে দাঁড়াইছি বলে পুলিশ মেরে আমাকে ফুলিয়ে দিছে।’

অনুমতি ছাড়া মানববন্ধন করার কারণ দেখিয়ে মানববন্ধনের ব্যানার ফেস্টুন ও মাইক ছিনিয়ে নেয় পুলিশ। তবে বাধা উপেক্ষা করে মানববন্ধন অব্যাহত রাখতে চাইলে, লাঠিচার্জ করে ছত্রভঙ্গ করে দেয়া হয়।

বামনা থানা, বরগুনার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ইলিয়াস আলী তালুকদার বলেন, ‘সরকারের বিপক্ষে কাজ করছে আমার মনে হয়। না হয় কোনো তথ্য ছাড়াই মানববন্ধন করছে।’

এছাড়াও নাতির মুক্তির দাবিতে মানববন্ধনে আসায় সিফাতের নানা সাবেক ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মো. আইউব আলী হাওলাদারকে গালমন্দ করেছে পুলিশ।

এ বিষয়ে সিফাতের নানা মো. আইউব আলী হওলাদার বলেন, পুলিশ আজ যা করেছে তা মোটেও ঠিক হয়নি।’

এ বিষয়ে বামনা থানা পুলিশর ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. ইলিয়াস হোসেন বলেন, ‘আমাদের অনুমতি না নিয়ে একদল দুষ্কৃতকারী রাষ্ট্রের বিরুদ্ধে মানববন্ধন করছে বলে আমি জানতে পারি। সরকারের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ন হবে বলে মানববন্ধন বন্ধ করে দিয়েছি।’

সিফাতের স্বজন ও স্থানীয়রা জানান, এক ভাই ও এক বোনের মধ্যে সিফাত বড়। সিফাতের একমাত্র বোন অনন্যা জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের মনোবিজ্ঞান বিভাগের অনার্স প্রথম বর্ষের শিক্ষার্থী। ১০ বছর আগে বাবা-মায়ের বিবাহ বিচ্ছেদের পর সিফাতের মা শিরীন আক্তার শিলা ৯ বছর ধরে লন্ডন প্রবাসী। আরা বাবা মো. মোস্তফা থাকেন ঢাকায়।

সিফাতের শৈশব ও কৈশর কেটেছে বরগুনার বামনা উপজেলার পশ্চিম সফিপুর গ্রামের নানা বাড়িতে। বামনা একমাত্র সরকারি সারওয়ার জান মডেল উচ্চ বিদ্যালয়ের বিজ্ঞান বিভাগ থেকে ২০১৪ সালে এসএসসি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হন সিফাত। এরপর বামনা সরকারি ডিগ্রি কলেজ থেকে ২০১৬ সালে এইচএসসি পাস করে ভর্তি হন স্ট্যামফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের ফিল্ম অ্যান্ড মিডিয়া স্টাডিজ বিভাগে।

ঢাকায় ভর্তি হওয়ার পর খালার বাসায় থেকে লেখাপড়া করতেন সিফাত। বছরে দু-চারবার বামনা আসলেও পড়ে থাকতেন ক্যামেরা আর ট্রাইপড নিয়ে। ছবি তোলার নেশায় ঘুরে বেড়াতেন এক এলাকা থেকে অন্য এলাকায়। শৈশবে বাবা-মায়ের স্নেহ বঞ্চিত হলেও কখনও সিফাত বিপথগামী হননি বলে জানান তারা।

শেয়ার করুন

© All rights reserved, প্রবাসী ক্লাব ফাউন্ডেশন- The Expat Club Foundation. (এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি)।  
Design & Developed By NCB IT
Shares